HomeAll Postনতুন ভোটাররা নিয়ে নিন আপনার NID কার্ডের অনলাইন কপি। আর ১০৫ এ কল দিতে দিতে শহীদ হতে হবেনা!
Advertice Space with sell

Contact With facebook

নতুন ভোটাররা নিয়ে নিন আপনার NID কার্ডের অনলাইন কপি। আর ১০৫ এ কল দিতে দিতে শহীদ হতে হবেনা!

আসসালামু আলাইকুম। 

আশা করি প্রত্যেকে ভালই আছেন। 

নিজের জাতীয় পরিচয় পত্রের নাম্বার পাওয়ার জন্য ১০৫ এ কল দিয়ে দিয়ে শহীদ হয়ে গেছেন এরকম পাব্লিকের অভাব নেই।

তাই আজকে আমি দেখাতে চলেছি মাত্র ৫ মিনিটের মধ্যে নতুন ভোটারদের NID কার্ডের অনলাইন কপি পাওয়ার উপায়। তো চলুন শুরু করা যাক।

*ইতোমধ্যে  এটা নিয়ে পোস্ট থাকলেও পোস্ট গুলো অপর্যাপ্ত মনে হওয়ার কারনে আবারও পোস্ট করতেছি এবং পূর্বের পোস্টদাতাদের কাছে আমি ক্ষমা চেয়ে নিচ্ছি। 

*১৮ বছর বয়স যাদের হয়নি তারা এখনই পোস্টটি স্কিপ করেন। এই ট্রিকের মাধ্যমে১৮ বছরের আগে NID কার্ডের অনলাইন কপি পাবেন না ভাই।  আপনারা নির্বাচন কমিশন অফিসে যোগাযোগ করুন। 

যা যা লাগবে :

১.ভোটার নিবন্ধন স্লিপের ফর্ম নাম্বার

২. জন্ম তারিখ

৩. একটি মোবাইল নাম্বার

৪. একটি ইমেইল একাউন্ট

চলেন এবার আসল কাজে যাই।

প্রথমেই এই লিংকে ক্লিক করুন।

ক্লিক করলে  নিচের স্ক্রিনশট এর মতো একটি ইন্টারফেস দেখতে পাবেন। এখানে   উপরে ফর্ম নাম্বার সিলেক্ট করাই থাকবে। ১ম বক্সটিতে  স্লিপ নম্বর, ২য় বক্সে জন্মদিন এবং ৩য় বক্সে  বাম পাশে দেখানো ক্যাপচা কোডটি হুবুহু লিখে  “ভোটার তথ্য দেখুন” এখানে ক্লিক করুন।

এর পরেই আপনি আপনার জাতীয় পরিচয় পত্রের কিছু বিবরণীসহ  আইডি কার্ডের নম্বরটি দেখতে পাবেন লাল সংখ্যায়। এবার লাল সংখ্যার নাম্বারটি কপি করে নিন বা কোথাও লিখে রাখুন।

এন আইডি নাম্বার সংগ্রহ করা হয়ে গেলে উপরে রেজিস্ট্রার অপশনে ক্লিক করুন৷

*যারা ইতোমধ্যে আইডি নাম্বার পেয়েছেন কিন্তু অনলাইন কপি নিতে পারেননি তারা এখান থেকে শুরু করুন।      

“রেজিস্ট্রেশন ফরম পূরণ করতে চাই ”  এখানে ক্লিক করুন।

অতঃপর নিচের স্ক্রিনশট এর মতো দেখতে পাবেন এখানে সব তথ্য সঠিকভাবে পূরন করে একটি নতুন পাসওয়ার্ড দিয়ে পরিশেষে ক্যাপচা কোডটি দিয়ে “রেজিস্ট্রার” এ ক্লিক করুন।

*পাসওয়ার্ড দেওয়ার ক্ষেত্রে অবশ্যই কমপক্ষে  একটি বড় হাতের অক্ষর,একটি ছোট হাতের অক্ষর এবং একটি সংখ্যা ব্যবহার করতে হবে। 

*পাসওয়ার্ড অবশ্যই ইংরেজিতে দিতে হবে।    

“রেজিস্টার” এ ক্লিক করার পর সব তথ্য সঠিকভাবে দেওয়া হলে উপরে প্রদত্ত মোবাইল নাম্বারে একটি কোড যাবে, এবার কোডটি সংগ্রহ করে নিচের বক্সে বসিয়ে “রেজিস্ট্রার” এ ক্লিক করুন।

অল ডান!হয়ে গেল আপনার একাউন্ট Activated  (স্বক্রিয়)।

এবার ১ম বক্সে সংগৃহীত আইডি নম্বর, জন্ম তারিখ এবং নতুন যে পাসওয়ার্ড টি দিয়ে ফরম পূরণ করেছিলেন সেটি দিন এবং বাম পাশে থাকা ক্যাপচা কোডটি হুবহু বসিয়ে দিয়ে “সামনে” এখানে ক্লিক করুন৷

এরপর ফরম পূরণের সময় যে মোবাইল নাম্বারটি দিয়েছিলেন সেই নাম্বারে একটি কোড যাবে। সেই কোডটি ফাকা ঘরে দিয়ে “লগইন” এ ক্লিক করুন।

 

লগিন এ ক্লিক করার পর আপনি আপনার NID ইনফরমেশন গুলো দেখতে পাবেন।

এবার অনলাইন কপিটি সংগ্রহ করার জন্য ডান কর্ণারে থাকা “পরিচয় বিবরণী” অপশনে ক্লিক করুন। ক্লিক করলে স্বয়ংক্রিয়ভাবে ডাউনলোড শুরু হবে।

ব্যাস পেয়ে গেলেন আপনার জাতীয় পরিচয় পত্রের অনলাইন কপি!

আশা করছি কোনোরকম সমস্যার সম্মুখীন হওয়া ছাড়াই এই পদ্ধতিতে আপনারা NID সফট কপি সংগ্রহ করতে পারবেন। তারপরও কোনো সমস্যা হয়ে থাকলে কমেন্টে জানান আমি চেষ্টা করব সমাধান দেওয়ার।

*বিজ্ঞাপন :

উইজট্রিক ডট কম এ একটি মানসম্মত পোস্ট করেলেই পাবেন ট্রেইনারশিপ। প্রতিটি পোস্টের জন্য দেওয়া ১০-১৫ টাকা। 

তাই এই হোম কোয়ারেন্টাইনে বাসায় বসে না থেকে ভিজিট করতে পারেন আমাদের  wiztrick.com  😍

সকলের সুস্বাস্থ্য কামনা করে এখানেই শেষ করছি।

আল্লাহ হাফেজ। 🙂

The post নতুন ভোটাররা নিয়ে নিন আপনার NID কার্ডের অনলাইন কপি। আর ১০৫ এ কল দিতে দিতে শহীদ হতে হবেনা! appeared first on Trickbd.com.

Source:

About Author (1574)

This author may not interusted to share anything with others

Leave a Reply

Related Posts

Switch To Desktop Version