প্রতিদিন কেনো কাজ না করে Crypto Currency আয় করুন, যার প্রতি কয়েনের মূল্য হতে পারে ১০ ডলার!

Posted on

I’mআসসালামু আলাইকুম ভিউয়ার্স

 

আশা করি আপনারা সবাই ভাল আছেন আমিও আল্লাহর নাম অশেষ রহমতে ভালো আছি। আজকে আমি আপনাদের মাঝে নতুন আরো একটি ইন্টারেস্টিং টিউটোরিয়াল নিয়ে হাজির হয়েছি। আজকের টিউটোরিয়াল এর মাধ্যমে আপনারা জানতে পারবেন কিভাবে প্রতিদিন কোনরকম পরিশ্রম না করে বিট কয়েনের মতো ক্রিপ্টোকারেন্সি ইনকাম করবেন

 




তো চলুন কথা না বাড়িয়ে শুরু করা যাক

 

শুরুতেই একটা কথা বলে রাখি, আমি এই সাইট থেকে এখনো কোনো টাকা পায়নি। শুধু আমি না, এখন পর্যন্ত কেউই কয়েন কে টাকাতে কনভার্ট করতে পারেনি।

 

এর কারণ হচ্ছে এই ক্রিপ্টোকারেন্সি নেটওয়ার্ক ২০২২ সালের মার্চ মাসের মধ্যে লঞ্চ হতে যাচ্ছে। লঞ্চ করার আগ মুহূর্তে প্রমোশনের জন্য তারা বিশ্বব্যাপী সাধারণ ইউজারদের সুযোগ করে দিয়েছে কোনো রকম কাজ ব্যতীত ক্রিপ্টোকারেন্সি ইনকাম করার।

 

একটা সহজ হিসাব বুঝিয়ে দেই, এই ক্রিপ্টো কারেন্সি থেকে আপনি প্রতি ঘন্টায় ০.১২ কারেন্সি ইনকাম করতে পারবেন কোন রকম কাজ ছাড়া। মানে ২৪ ঘন্টায় আপনি ২.৮৮ কয়েন ইনকাম করতে পারবে।

 

গ্লোবাল কিছু নিউজ থেকে শোনা যাচ্ছে, এই প্লাটফর্ম লঞ্চ হওয়ার পরে প্রতি কয়েনের দাম আনুমানিক ১০ ডলার হবে!

 

তাহলে বুঝতেই পারছেন আপনি যদি এখন থেকে জাস্ট অ্যাকাউন্ট করে রাখেন তাহলে যখন কোম্পানি লঞ্চ হবে তখন কি পরিমান প্রফিট আয় করতে পারবেন!

 

এখন কিভাবে একাউন্ট করবেন নিজের ফোন নাম্বার ভেরিফাই করবেন সে বিষয়ে দেখে আসি।

অ্যাকাউন্ট খোলার জন্য সর্বপ্রথম আপনাকে প্লে স্টোর থেকে Pi Network অ্যাপ ইনস্টল করতে হবে।

 

অবশ্যই খেয়াল রাখবেন নাম দেওয়ার সময় সেটা যেন ভোটার আইডি কার্ডের সাথে মিল থাকে।









অনেকদিন ধরে আবেদন করার পরেও এখনো ভোটার আইডি কার্ড হাতে পাইনি বলে নিজের অনলাইন ভোটার আইডি কার্ড দিয়ে না করে আব্বার টা দিয়ে একাউন্ট করেছি।

 

যদি উইথ ড্র করতে চান তাহলে অবশ্যই ভোটার আইডি কার্ডের সাথে মিল রেখে নাম দেওয়ার চেষ্টা করবেন।


Invitation Code এ অবশ্যই আপনাকে অন্যের রেফারেল কোড দিতে হবে। এটা ম্যান্ডেটরি। সো আপনি চাইলে দিতে পারেন আর না চাইলে অপশনাল কোন উপায় নেই। আমার Invitation Code: ayubali12345

এখানে আপনাকে ছোট একটা কাজ বুঝে নিতে হবে। প্রতি 24 ঘন্টা অন্তর অথবা সিওর থাকার জন্য দিনে দুইবার রিফ্রেশ করতে হবে যাতে তারা বুঝতে পারে আপনি তাদের ডেইলি অ্যাক্টিভ মাইনার।


ব্যালেন্স দেখার জন্য আপনি কত টাকা মাইনে করেছেন সেটা উপরের ড্যাশবোর্ডে দেখতে পারবেন।

কিভাবে ফোন নাম্বার ভেরিফিকেশন করবেন?

 

আপনার ফোন নাম্বার ভেরিফিকেশন করার জন্য তাদের দেওয়া নির্দিষ্ট নাম্বারে কোড সহ একটি এসএমএস পাঠাতে হবে। মনে রাখবেন আপনি যে মোবাইল নাম্বার দিয়ে একাউন্ট করেছিলেন সেই মোবাইল নাম্বার দিয়েই তাদের কাছে মেসেজ পাঠাতে হবে, অন্যথায় ভেরিফাইড হবে না।








তারা ট্রাস্টেড ক্রিপ্টোকারেন্সি এটা কিভাবে বিশ্বাস করবো?

 

এর জন্য আপনাকে গুগলের সাহায্য নিতে হবে। আপনি এই সাইট সম্পর্কে গুগোল এ রিচার্জ করলেই পেয়ে যাবেন অনেক বড় বড় নিউজ রিপোর্টার তাদের cover-up করেছে।

 

এছাড়া বিশ্বস্ত কিছু নিউজ পোর্টাল থেকেও বোঝা যায় তারা ২০২২ সালে লঞ্চ করবে এবং নিজেদের প্রমোশনাল এর খাতিরে ইউজারদের ফ্রী মাইনিং করার সুযোগ দিয়েছে এবং সেই মাইনিং টাকাতে কনভার্ট করার ব্যবস্থা তারা সামনে করবে।

এমনকি আপনি যদি তাদের ফেসবুক পেজ ফলো করেন বা সার্চ করে দেখেন তাহলে দেখবেন প্রায় 10 লক্ষের কাছাকাছি লাইক! সো এত বড় প্ল্যাটফর্মেরর ধোকাবাজি করার চান্স 0%

আশা করছি এই টিউটোরিয়ালটি আপনাদের সবার ভালো লেগেছে । যদি টিউটোরিয়ালটি ভালো লাগে এবং এটা হতে সামান্যতম উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে অবশ্যই পোস্টে একটা লাইক এবং কমেন্ট করবেন । কারন আপনার একটা লাইক এবং কমেন্ট আমাকে অনুপ্রেরণা যোগাবে আমার পরবর্তী পোস্টের জন্য।

 

 

ধন্যবাদ আপনার মূল্যবান সময় অপচয় করে পোস্টটি পড়ার জন্য।

 

The post প্রতিদিন কেনো কাজ না করে Crypto Currency আয় করুন, যার প্রতি কয়েনের মূল্য হতে পারে ১০ ডলার! appeared first on Trickbd.com.

Source:

Leave a Reply

Your email address will not be published.