Top 5 Programming Languages In 2022

Posted on

আসসালামুয়ালাইকুম।

 

আজকে আমি এমন পাঁচটি প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ নিয়ে আলোচনা করবো যা 2022 সালে অর্থাৎ চলমান সময়ের সাথে সামঞ্জস্য রেখে শিখতে পারবেন বা শেখা উচিত। আর এরকম না যে সবগুলো ল্যাঙ্গুয়েজ একই ধরনের কাজ করে কারণ এসব ল্যাঙ্গুয়েজ বিভিন্ন জায়গায় বিভিন্ন ভাবে ব্যবহার হয়ে থাকে। আমি ল্যাঙ্গুয়েজ গুলো ধাপ অনুসারে দিয়ে দিব কিন্তু এর মানে এই নয় যে প্রথমে যা থাকবে তা অনেক ভালো ল্যাঙ্গুয়েজ বা এই ল্যাঙ্গুয়েজ শিখে ভালো কিছু করা যাবে, আমি রেনডমলি দিয়ে দিব এখন আপনাদের যেটা ভালো লাগে সেটার উপর প্র্যাকটিস চালিয়ে যেতে পারেন। কোন ল্যাঙ্গুয়েজ সে নিজেই পারফেক্ট প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ হতে পারে না কারণ এসব বিভিন্ন প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ বিভিন্নভাবে বিভিন্ন কাজে আসে বা কাজ করতে পারে। কিছু ল্যাঙ্গুয়েজ আছে ওয়েব ডেভেলপমেন্ট এর ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হয়ে থাকে আবার কিছু ল্যাঙ্গুয়েজ আছে অ্যাপ ডেভেলপমেন্ট এর কাজে ব্যবহার হয়ে থাকে। এখানে কথা হচ্ছে আমরা যা শিখতে ইচ্ছুক বা (In Future) এ আমরা যে বিষয়ের উপর ভবিষ্যৎ গড়তে চাই সে হিসেব করে আমাদের বিভিন্ন ল্যাঙ্গুয়েজ চয়েজ করা উচিত।

 

1. Java

তো চলুন প্রথমে জাভা নিয়ে আলোচনা করা যাক। এখন জাভা অনেক পপুলার একটা প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ, বিশেষ করে অ্যাপ ডেভেলপমেন্ট এর ক্ষেত্রে জাভার ভূমিকা অপরিসীম। কারন (Android App Development) এর ক্ষেত্রে জাভা (One Of The Most Popular) Language. কারন আরেকটি ব্যাপার শুনলে আপনারা অবাক হবেন (Android) এর যে (Software Development Kit) .SDK রয়েছে সেটাও মূলত (Java) ব্যাবহার করে তৈরি করা হয়েছে। কারন (Java) ল্যাঙ্গুয়েজটি যখন বানানো হয়েছিল তখন একটা কনসেপ্ট ব্যাবহার করা হয়েছিল যে (Write Once And Run Anywhere) এর মানে দাঁড়ায় (একবার লিখো এবং যেকোনো জায়গায় ব্যাবহার করো। এখানে বিষয় হচ্ছে আগে যে প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ গুলো বানানো হতো তা হয়তো শুধু যদি উইন্ডোস (Windows) এর জন্য বানানো হতো এবং শুধু উইন্ডোজ ব্যবহার করা যেতো, যদি বা সেটা ম্যাকবুক বা ম্যাক (Mac) জন্য বানানো হতো তখন শুধু সেটা ম্যাকবুক এই রান হতো অথবা (Linux) লিনাক্সের সফটওয়্যার হলে সেটা শুধুমাত্র লিনাক্সেই চলতো। কিন্তু Java এমন একটি ল্যাঙ্গুয়েজ যেখানে আপনি একবার কোড লিখলে সেটা আপনি সিস্টেমের ধরন অনুযায়ী (Windows, Mac, Linux) সব ধরনের অপারেটিং সিস্টেমে রান করতে সক্ষম। এজন্যই জাভা এতটা ভার্সেটাইল কোডিং ল্যাঙ্গুয়েজ। বাংলাদেশের কথা যদি বলি তাহলে বাংলাদেশও (Data Structure & Algorithm Solving) এর জন্য মেইনলি (Java & c++) ব্যবহার করা হয়ে থাকে। এবং এ দুটি ল্যাঙ্গুয়েজ ব্যবহার করে যদি আপনি বিভিন্ন প্রবলেম সলভিং করতে পারেন তাহলে বাংলাদেশে আপনার চাকরির অভাব হবে না। জাভা এবং সি প্লাস প্লাস অর্থাৎ (Object Oriented Programming) সি শার্প এর তুলনায় অনেক Easy. আর কোড করার জন্য আমরা বিভিন্ন এডিটর ব্যবহার করতে পারি এবং এর তার মধ্যে কিছু জনপ্রিয় কোড এডিটর গুলো হলোঃ

1. Visual Studio Code (VS. Code)

2. Intellij

3. Elcipse

আর বড় বড় কোম্পানির কথা বলতে গেলে স্পেসিফিক্যালি যে কোম্পানি জাভা ডেভলপারদের হায়ার করে এদের মধ্যে জনপ্রিয় কিছু কোম্পানিদের নাম হলো:

1. Uber

2. Google

3. Instagram

আপনার চাইলে এসব কম্পানি তে এপ্লাই করতে পারেন, সেক্ষেত্রে আপনার ন্যূনতম ডিগ্রী B.Sc in EEE, CSE, etc, etc.

চাইলে ইন্টারনেটে ঘাঁটাঘাঁটি করে দেখতে পরেন।

 

2. Python

দ্বিতীয় নাম্বারে যে প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ টি আছে সেটি হল পাইথন। পাইথনকে জাভার কম্পিটিটর হিসেবে তৈরি করা হয়েছিল, কিন্তু পাইথন এখন অনেক পপুলার একটি প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ এবং এটি খুব কম সময়ে অনেক পপুলার হয়ে গেছে। কেননা এ ল্যাঙ্গুয়েজ টি শেখা অনেক সহজ এবং খুব অল্প সময়ে আপনি চাইলে ল্যাঙ্গুয়েজ টি শিখতে পারবেন। কারণ পাইথনে অনেক লাইব্রেরী রয়েছে যে কারণে এটি শেখাও অত্যন্ত সহজ। আর দ্বিতীয়ত হচ্ছে আমাদের যদি ওয়েব ডেভলপমেন্ট করার ইচ্ছা থাকে তাহলে আমরা (Flask, Django) এ ধরনের ফ্রেমওয়ার্ক পেয়ে যাচ্ছি আর এই কারণেই ওয়েব ডেভলপমেন্ট অনেক সহজ হয়ে যায়। আর ডেটা সাইন্স, মেশিন লার্নিং , আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স এগুলো শিখতে হলে পাইথন সবচেয়ে পপুলার ল্যাঙ্গুয়েজ। কারন এ ধরনের বিভিন্ন জিনিস পাইথন ব্যবহার করে তৈরি করা হয়ে থাকে এবং তার ডেভলপ করা হয়ে থাকে। যদি আপনি এ ফিল্ড এ আসতে চান তাহলে আমি রিকমেন্ড করবো আপনি পাইথন শিখুন। আরেকটি বিষয় হলো আপনারা যারা প্রোগ্রামিং এ নতুন অর্থাৎ যারা যাচ্ছেন যে আজকে থেকেই আমি প্রোগ্রামিং শেখা শুরু করবো তাদের জন্য পাইথন একটা (Better Choice).

পাইথন শিখে আপনি যেসব কোম্পানিতে জব করতে পারবেন যেসব কোম্পানিগুলো হলোঃ

1. Razorpay

2. IBM

3. Intel

4. Spotify

 

3. JavaScript

তিন নাম্বারে আমরা 2022 এ চলমান সময়ে যে ল্যাঙ্গুয়েজ শিখতে পারবো সেটি হচ্ছে ইন্টারনেটের ভাষা অর্থাৎ ইন্টারনেটের ল্যাঙ্গুয়েজ। ওয়েব ডেভেলপমেন্ট এর ক্ষেত্রে (JavaScript) এর ব্যবহার ব্যাপক বলা চলে। আর এটি অনেক ভার্সেটাইল একটি ল্যাঙ্গুয়েজ। জাভাস্ক্রিপ্ট চাইলে মোবাইল অ্যাপ ডেভেলপমেন্ট এর ক্ষেত্রে ব্যবহার করতে পারবেন ডেক্সটপ অ্যাপ ডেভেলপমেন্ট এর ক্ষেত্রে ব্যবহার করতে পারবেন আর ওয়েব ডেভেলপমেন্ট তো আছেই। যদি আপনি ডেভেলপমেন্ট এর ক্ষেত্রে আসেন তাহলে জাভা খুব গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে। যদি আপনি (Font End) ডেভলপমেন্ট করতে চান তাহলে (Angular, Vue, React) এ ধরনের ফ্রেমওয়ার্ক পেয়ে যাবেন। আর যদি (BackEnd) ডেভলপমেন্ট করতে চান তাহলে (node.js vanilla.js) ব্যবহার করতে পারেন। কারণ জাভাস্ক্রিপ্ট মূলত ইন্টারনেট ওয়ার্ল্ডে অনেক বেশি ডমিনেট করে। সো আপনি চাইলে জাভাস্ক্রিপ্ট শিখতে পারেন। জাভাস্ক্রিপ্টের খুব ভালো ডেভলপার হতে পারলে আপনি যে কোম্পানিতে জবের জন্য এপ্লাই করতে পারবেন সে কোম্পানি গুলোর নাম দেয়া হলোঃ

1. Google

2. Netflix

3. Bigbasket

4. Paypal

 

4. c++

এর মধ্যে আরেকটি জনপ্রিয় ল্যাঙ্গুয়েজ হল সি প্লাস প্লাস। ল্যাঙ্গুয়েজ টি আমাদের 2022 এর ভিতর শেখা উচিত, বিশেষ করে যারা কলেজ স্টুডেন্ট তাদের জন্য। কারণ ডাটা স্ট্রাকচার ও অ্যালগরিদম সলভ করতে সিপ্লাস্প্লাস অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। আরেকটি বিষয় হচ্ছে সিপ্লাস্প্লাস (Compile) এ অনেক কম সময় নেয় অন্যান্য প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজের সাথে তুলনা করলে। আর বিশেষ করে ইন্টারভিউ এর ক্ষেত্রে সিপ্লাস্প্লাস অনেক ইউজফুল। যদি আপনি অপারেটিং সিস্টেম তৈরি করতে চান অর্থাৎ সিস্টেম হেভি কাজ করতে চান যেখানে আমাদের প্রসেসিং ফার্স্ট হওয়া দরকার তো সেখানে আমরা (c++) ব্যবহার করতে পরি। অনেকে আমরা গেম ডেভেলপমেন্ট করতে ইচ্ছুক সে ক্ষেত্রে (Unreal) একটি গেইম ইঞ্জিন ব্যবহার করা হয় এবং সেখান (c++) ব্যবহার করা হয়।

 

 

5. Go

যারা নতুন ডেভেলপার আছেন তারা হয়তো এই প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজের নামই শোনেননি কিন্তু বর্তমানে এটি অনেক জনপ্রিয় একটি প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ, কোডিং কমিউনিটিতে এর নাম হচ্ছে Go

 

ল্যাঙ্গুয়েজ টি গুগলের বানানো নিজস্ব একটি ল্যাঙ্গুয়েজ এবং ডেভেলপমেন্ট এর ক্ষেত্রে বিভিন্ন জায়গায় বর্তমানে ব্যবহার হয়ে থাকে। ল্যাঙ্গুয়েজ টি মূলত (C#, Java) এর সাথে অনেকটা মিল রয়েছে। (Go Lang) মূলত প্রফেশনাল ডেভেলপারদের জন্য অনেক কার্যকরী একটি ল্যাঙ্গুয়েজ, কারণ এ ল্যাঙ্গুয়েজ ব্যবহার করে ডেভেলপ করলে ডেভলপমেন্ট টাইম অনেক কম লাগে। যদি আপনি ওয়েব ডেভলপমেন্ট করেন বা ক্লাউড সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট করেন তাহলে ল্যাঙ্গুয়েজটি আপনার জন্য অনেক কাজে আসতে পারে। গুগোল এর ল্যাংগুয়েজ থাকায় এটি অনেক দ্রুত ডেভেলপ হয়ে আসছে। এটি শিখে যে ইন্ডাস্ট্রি বা কোম্পানিতে আপনি জব পেতে পারেন তা হলোঃ

1. Dropbox

2. Google

3. etc, etc.

 

এছাড়া এরকম আরো তিনটি ল্যাঙ্গুয়েজ আছে যেটা আপনারা চাইলে 2020 এর ভেতরে শিখতে পারেন।

1. PHP

2. Swift

3. TypeScript

 

1. PHP অনেক পুরাতন একটি প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ যদিও কিন্তু বর্তমানে এর ব্যবহার হয়ে থাকে, কিন্তু বর্তমানের সবাই পাইথনের django অথবা জাভাস্ক্রিপ্টের node.js ওপর বেশি নির্ভর করছে। বর্তমানে পিএইচপি ডেভেলপার খুব কম আছে বলে আমার কাছে মনে হয়, কিন্তু যারা পিএইচপি ভালো পারে ওদের বিভিন্ন কোম্পানি খুব ভালো সেলারি দিয়ে এখনো কোম্পানিতে হায়ার করছে।

 

2. Swift ব্যবহার করতে হলে আপনার কাছে একটি অ্যাপেল ডিভাইস থাকতে হবে, তা না হলে আপনি এটি প্র্যাকটিস করতে পারবেন না। এজন্য ডেভেলপার এর সংখ্যা অনেক কম।

 

3. TypeScript কে মূলত জাভাস্ক্রিপ্টের ছোট ভাই বলা চলে। তবে টাইপ স্ক্রিপ্ট এর তুলনায় জাভাস্ক্রিপ্ট অনেকটাই সহজ। এবং টাইপ স্ক্রিপ্ট এর তুলনায় জাভাস্ক্রিপ্টের জব অনেক বেশি। কিন্তু টাইপ স্ক্রিপ্টের যারা ভালো ডেভেলপারের আছেন তাদের বিভিন্ন কোম্পানি হাই সেলারি দিয়ে তাদের কোম্পানিতে গ্রহণ করছে।

 

আশা করি আমার এই লেখা থেকে আপনারা কিছু হলেও শিখতে পেরেছেন। আজকে এই পর্যন্তই।

Bye 🙂

The post Top 5 Programming Languages In 2022 appeared first on Trickbd.com.

Source:

Leave a Reply

Your email address will not be published.